Trending Now

সাম্প্রদায়িক শক্তির ঔদ্ধত্য বরদাশত করা হবে না: মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী

মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম বলেছেন, আমরা মুক্তিযুদ্ধের চেতনার বাংলাদেশ বিনির্মাণ করতে চাই। সেই চেতনার বাংলাদেশ বিনির্মাণ করতে গিয়ে রাজাকার ও সাম্প্রদায়িক শক্তির ঔদ্ধত্য কোনোভাবে আমরা বরদাশত করবো না। বঙ্গবন্ধু অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশের স্বপ্ন দেখেছিলেন। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে বঙ্গবন্ধুর সেই স্বপ্নকে ভেঙ্গে দেয়ার জন্য রাজাকারদের প্রেতাত্মা আবার মাথাচাড়া দিয়ে উঠেছে। এই প্রেতাত্মাদের রুখতে আমাদের ইস্পাতকঠিন ঐক্য দরকার। মুক্তিযুদ্ধের বাংলাদেশকে সাম্প্রদায়িক বাংলাদেশে পরিণত করতে কাউকে দেয়া হবে না।

শনিবার পিরোজপুরের নেছারাবাদ উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে স্থানীয় উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত বীর মুক্তিযোদ্ধা ও স্থানীয় নেতৃবৃন্দের  সাথে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ সব কথা বলেন মন্ত্রী।

নেছারাবাদ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মোশারেফ হোসেনের সভাপতিত্বে সাবেক সংসদ সদস্য মো. শাহ আলম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম এ হামিদ, স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডারগণসহ বীর মুক্তিযোদ্ধারা ও স্থানীয় আওয়ামী লীগের অন্যান্য নেতৃবৃন্দ সভায় উপস্থিত ছিলেন।

 

শ ম রেজাউল করিম আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভেঙে দেয়া নির্বোধেরা জানে না ভাস্কর্য ভেঙে কিছু হয় না। ওরা জানে না বঙ্গবন্ধু একটা বিশ্বাস, একটা আদর্শ, একটা ভালোবাসা। বঙ্গবন্ধু হচ্ছেন একটা প্রেরণা, যেকোনো কিছুতে দীক্ষিত হওয়ার একটা শক্তি। ভাস্কর্য ভেঙে বঙ্গবন্ধুকে শেষ করে দেয়া যায় না। বঙ্গবন্ধু আমাদের চেতনায়, আমাদের বিশ্বাসে চির অম্লান হয়ে থাকবে। যতদিন বাংলাদেশ থাকবে, বাঙালি থাকবে, ততদিন বঙ্গবন্ধু থাকবেন।

তিনি আরো বলেন, মুক্তিযোদ্ধাদের মন থেকে সম্মান করা আমাদের নৈতিক দায়িত্ব ও কর্তব্য। তারা যেনো কোনো অবিচারের শিকার না হন। কারণ মুক্তিযোদ্ধাদের সাথে আর কারো তুলনা হয় না। অনেকে অনেক কিছু হতে পারলেও জীবন বাজি রেখে মুক্তিযোদ্ধা কেউ হতে পারবে না। মুজিববর্ষে একজন মুক্তিযোদ্ধাও গৃহহীন থাকবে না। শেখ হাসিনার আমলে একজন মুক্তিযোদ্ধার চোখেও কষ্ট দেখতে চাই না, কান্নার অশ্রু দেখতে চাই না।

এর আগে নেছারাবাদ উপজেলায় নবনির্মিত ব্যাডমিন্টন কোর্টের শুভ উদ্বোধন করেন মন্ত্রী। পরে শীতার্তদের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল থেকে প্রাপ্ত শীতবস্ত্র বিতরণ করেন তিনি।

About STAR CHANNEL

Check Also

চলমান লকডাউনের ধারাবাহিকতা ১২ ও ১৩ এপ্রিল পর্যন্ত থাকবে, ১৪ এপ্রিল থেকে সর্বাত্মক

প্রথম দফার বিধিনিষেধ শেষ হচ্ছে আজ। আগামী ১৪ এপ্রিল থেকে শুরু হবে কঠোর ও সর্বাত্মক …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *