Trending Now

সেই কিশোর গ্যাং সদস্যরা ইয়াবাসহ গ্রেফতার

নারায়ণগঞ্জ শহরের প্রাণকেন্দ্র চাষাঢ়া মোড় এলাকায় একটি বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে এলাকায় ত্রাস ও জনগণের মনে ভয়ভীতি সৃষ্টিকারী কিশোর গ্যাংয়ের তিন সদস্যকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১১। গ্রেফতারকৃতরা- হলো শহরের আমলপাড়া এলাকার মোঃ অনিক (২০), কায়েমপুরের মোঃ রবিন (১৯) ও ১৬ বছর বয়সের অপ্রাপ্ত বয়স্ক একজন। বৃহস্পতিবার দুপুরে র‌্যাব-১১ ওই অভিযান চালালেও রাতে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে ওই অভিযানের বিষয়টি নিশ্চিত করে।

র‌্যাব জানায়, গ্রেফতারকৃতদের জিজ্ঞাসাবাদ ও প্রাথমিক অনুসন্ধানে জানা যায় যে, তারা সবাই দুষ্কৃতিকারী ও কিশোর গ্যাংয়ের সদস্য। তারা দীর্ঘদিন যাবৎ রাস্তাঘাটে পরিকল্পিতভাবে দলবদ্ধ হয়ে সংঘাত সৃষ্টি ও জনগণের মনে ভয়ভীতি দেখিয়ে এলাকায় ত্রাস সৃষ্টিসহ নিয়মিত দলবদ্ধভাবে ইয়াবা সেবন করে আসছিল। তাদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ প্রাপ্ত হয়ে র‌্যাব-১১ এর একটি টিম তদন্তে নামে এবং ঘটনার সত্যতা পেয়ে ১৭ ডিসেম্বর জেলার ২নং রেল গেটের গোল চত্ত্বরের পশ্চিম পার্শ্বে একটি দোকানের সামনে অভিযান করে। উক্ত সময় র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে কিশোর গ্যাং এর সদস্যরা দৌড়ে পলায়নের চেষ্টাকালে ৩ জন সক্রিয় সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়। এসময় তাদের হেফাজত থেকে ৬০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

এর আগে নারায়ণগঞ্জ শহরের চাষাঢ়ায় ফিল্মি স্টাইলে তাণ্ডব চালায় স্থানীয় কিশোর গ্যং। তুচ্ছ ঘটনায় আলমগীর হোসেন (৩৫) নামে এক ব্যক্তির উপর হামলা করে নির্যাতন করা হয়। রাস্তা বন্ধ করে দিয়ে কিশোর গ্যাংয়ের সাত আটজন সদস্য মিলে দুই দফায় তাকে বেধড়ক মারধর করে। তার জামা কাপড় ছিঁড়ে ফেলা হয়। এ সময় বঙ্গবন্ধু সড়কে প্রায় বিশ পঁচিশ মিনিট যানজট সৃষ্টি হয়। ভোগান্তিতে পড়েন বিভিন্ন পরিবহনের যাত্রীরা।

 

মঙ্গলবার (১৫ ডিসেম্বর) রাতে চাষাঢ়ার বিজয়স্তম্ভের নিকটবর্তী পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও প্রিপারেটরী স্কুলের মধ্যবর্তী বঙ্গবন্ধু সড়কে এই হামলার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় আহত আলমগীর সদর মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। তিনি শহরের উত্তর চাষাঢ়া এলাকার রবিনের বাড়ির ভাড়াটে।

About STAR CHANNEL

Check Also

অদ্ভূত কাণ্ড, স্বামীর গলায় শিকল বেঁধে বের হলেন রাস্তায়!

ইতোমধ্যে এসে গিয়েছে করোনার ভ্যাকসিন। তা সত্ত্বেও করোনার নতুন স্ট্রেন নিয়ে আতঙ্ক বাড়ছেই। বিশ্বের বহু …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *